স্মৃতি ইরানি তাঁর সৎ মেয়ে শেনেল ইরাণীর সঙ্গে বিশেষ বন্ধনের কথা জানিয়েছেন এবং তার প্রমাণও আছে!

lead image

সিনেমা এবং স্নো হোয়াইট বা সিন্ডেরেলার মতো শিশু সাহিত্যে যেমন দেখানো হয়েছে, সব সৎ মা ওরকম খারাপ হন না।

কেন্দ্রীয় বস্ত্র মন্ত্রী এবং অভিনেত্রী স্মৃতি জে ইরানী সম্প্রতি তাঁর সৎ মেয়ে শেনেল ইরাণীকে পাঠানো একটি হৃদয়গ্রাহী বার্তা শেয়ার করে প্রমাণ করেছেন যে অন্তত কিছু ক্ষেত্রে একথা সত্য।

যা ঘটেছে তা হল, ইরাণী তাঁর সৎ মেয়ে শেনেলকে "দারুণভাবে" মিস করছিলেন এবং তাই তিনি ইনস্টগ্রামে তার ভালবাসা স্বরূপ একটি ছবি শেয়ার করেছেন। শেনেলের সেই ছবির সঙ্গে তিনি একটি মিষ্টি বার্তাও পাঠিয়েছেন।

তিনি লিখেছেন : "কেউ খুব দুঃখের সঙ্গে @শেনেলইরানী কে মিস করছে।"

 

#familyphoto some one is being missed sorely ????‍[email protected]

A post shared by Smriti Irani (@smritiiraniofficial) on

ইরানী পার্সি ব্যবসায়ী জুবিন ইরানীকে ২০০০ সালে বিয়ে করেছিলেন, যিনি ইতিমধ্যেই তার প্রথম বিয়ে থেকে কন্যাকে (শনেলে) পেয়েছিলেন। কিন্তু কি প্রশংসনীয় যে স্মৃতিটি তিনটি বাচ্চার মধ্যে পার্থক্য করে নি। সম্ভবত এই কারণেই তিনি ইনস্টাগ্রামে তাঁর আত্মপ্রকাশের পর তাঁর শেনেলের ছবি শেয়ার করেছেন।

 

A post shared by Zubin Irani (@iamzfi) on

মজার ব্যাপার হল, শাহরুখ খান প্রথম ব্যক্তি যিনি ছবিটির প্রতি প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন এবং তিনি ছবিটি সঙ্গে সঙ্গে আবার পোষ্ট করে এই রাজনীতিবিদ এবং তাঁর স্বামীের সাথে নিজের যোগাযোগের কথা প্রকাশ করেন।

তাই জানা গেল যে স্মৃতির সঙ্গে শাহরুখের সম্পর্কটি পুরোন, কারণ স্মৃতির স্বামী জুবিন হলেন তাঁর শৈশবকালের বন্ধু। বলিউডের বাদশা একথাও জানালেন যে তিনিই শেনেলের নামকরণ করেছিলেন।

 

A post shared by Smriti Irani (@smritiiraniofficial) on

সৎ ছেলেমেয়েদের সঙ্গে সুসম্পর্ক গড়ে তোলা কঠিন বলে মনে হতে পারে কিন্তু যদি আপনি স্মৃতি ইরাণীর দৃষ্টান্ত সামনে রাখেন এবং সেই সঙ্গে নিম্নলিখিতি বিষয়গুলি মাথায় রাখেন, এটি অনেক সহজ হয়ে উঠবে।

  • নিজেকে এবং সৎ ছেলেমেয়েদের অনেকটা সময় দিন যাতে তারা তাদের চারপাশের পরিবর্তন গুলির সঙ্গে সড়গড় হতে পারে।
  • আপনি তাদের ক্ষুদ্রতম চাহিদার প্রতি নজর রাখুন এবং তারা কি চায় তার প্রতি মনোযোগ রাখুন যাতে তারা বোঝে যে আপনি তাদের জন্য উদ্বেগবোধ করেন।
  • মনে রাখবেন যে আপনি তাদের মা নন এবং কোনোভাবেই সে জায়গা নিতে পারবেন না তাই তাদের সেই সম্পর্কের মধুর স্মৃতি নষ্ট করার চেষ্টা করবেন না এবং খেয়াল রাখবেন যে কখনও যেন সেখানে আপনি না এসে যান।
  • যদি প্রথমে তারা আপনাকে পছন্দ না করে নিজেকে অপরাধী ভাববেন না। হাজার হোক তারা শিশু এবং তারা আপনার সদিচ্ছাকে অনুভব করবে, বুঝবে যে আপনার ভালবাসা বিশুদ্ধ, তখন তারা নিশ্চয়ই এগিয়ে আসবে।