কেন আমার বাচ্চার ওজন কমছে?

lead image

আপনি যদি প্রায়ই অবাক হয়ে ভাবেন, "কেন আমার বাচ্চার ওজন কমছে?", তাহলে আপনার সন্তানের শারীরিক ও মানসিক স্বাস্থ্যের ব্যাপারে ভালোভাবে নজর দেবার এটাই সঠিক সময়। কারণটা এখানে দেওয়া হল।

মা হিসাবে আপনার সবচেয়ে বাজে দুঃস্বপ্নটি হল, আপনার সন্তানকে দ্রুত রোগা হয়ে যেতে দেখা । 'কেন আমার বাচ্চার ওজন কমছে', প্রশ্নটি আপনাকে তাড়া করে। যদিও আপনি তার খাবার, শারীরিক কার্যকলাপ এবং ঘুমের যথেষ্ট যত্ন নিচ্ছেন, তবুও আপনার সন্তানের ওজন কমে যাওয়া একটি প্রধান উদ্বেগ হতেই পারে।

"আদর্শগত ভাবে তার কত ওজন হওয়া উচিত? আমি কি আমার সন্তানকে যথেষ্ট খাওয়াচ্ছি না? সে কি অসুস্থ? কেন আমার সন্তানের ওজন কমছে?", আপনি হয়তো ভেবে কূলকিনারা পাচ্ছেন না।

যদি আপনার বাচ্চার ওজন ব্যাখ্যাতীত ভাবে কমে যাচ্ছে এবং মনে এইসব প্রশ্ন ফিরে ফিরে আসছে, তাহলে পড়ে চলুন।

কেন আমার শিশুর ওজন কমছে : মূলসূত্রের বাইরে

বাচ্চাদের ওজনে ওঠানামা খুবই স্বাভাবিক। কিন্তু যদি আপনার শিশুর ওজন যদি অপ্রত্যাশিতভাবে দ্রুত গতিতে কমে তবে সেটা মা-বাবার জন্য উদ্বেগজনক হতে পারে।

কিশোর কিশোরী এবং বয়ঃসন্ধির ছেলেমেয়েদের ক্ষেত্রে যৌবনারম্ভ ব্যাখ্যাতীত ওজন কমার ব্যাপারে একটি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে।

তাদের হরমোন নানা শারীরিক পরিবর্তন ঘটায় যেমন, ছেলেদের অন্ডকোষ আর মেয়েদের স্তনবৃদ্ধি এবং সেই সঙ্গে হঠাৎ করে উচ্চতা বাড়া। এই শারীরিক পরিবর্তনের ফলেও হঠাৎ ওজন কমে যেতে পারে।

বাচ্চারা প্রায়ই ওজন কমে যায় যদি তারা সহজেই ক্যালোরি পুড়িয়ে দেয়, অথবা যথেষ্ট পরিমাণে স্বাস্থ্যকর খাবার না খায় বা অসুস্থতাতে ভোগে বা তাদের বিপাকীয়তা কম থাকে।

যাই হোক না কেন, অপ্রত্যাশিত ওজন হ্রাস শিশুর সামগ্রিক বৃদ্ধি ও বিকাশে প্রতিকূল প্রভাব ফেলতে পারে।

কিন্তু বাচ্চার কিছু একটা গন্ডগোল আছে ভেবে আপনি আগেই লাফ ঝাঁপ না করে প্রথমে বুঝতে চেষ্টা করুন যে একজন ব্যক্তির স্বাস্থ্য কীভাবে তার ওজন দ্বারা নির্ধারিত হয় এবং কিসের ভিত্তিতে আলাদা সেটা আলাদা হতে পারে।

আমার সন্তানের আদর্শ ওজন কি হওয়া উচিত?

আপনার সন্তান সুস্থ বা অসুস্থ কিনা তা পরীক্ষা করতে আপনাকে তার দেহ ভর সূচক বা বডি মাস ইন্ডেক্স (বিএমআই) পরীক্ষা করতে হবে। এতে আপনার সন্তানের ওজন তার উচ্চতা এবং বয়স অনুযায়ী আদর্শ কিনা তা জানতে সাহায্য পাবেন।

আপনি আপনার ডাক্তারের কাছে যেতে পারেন বা আপনার বাচ্চার জন্য একটি বিএমআই ক্যালকুলেটর  কিনতে পারেন এবং বাড়িতে আপনার বাচ্চার শরীরের ফ্যাট কন্টেন্ট এবং আদর্শ ওজন পরীক্ষা করতে পারেন।

গ্লেনাগেলস মেডিকেল সেন্টারের এসবিসিসি বেবি এন্ড চাইল্ড ক্লিনিকে পরামর্শদাতা শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ, ডাঃ ন্যান্সি ট্যান এশিয়্যানপেরেন্টের সাথে কথা বলেছেন এবং কিভাবে বিএমআইটি কাজ করে তা ব্যাখ্যা করেছেন।

এখানে তিনি কি বলেছেন, এখানে দেওয়া হল :

বডি মাস ইনডেক্স বা বিএমআই হল একটি পরিমাপ যাতে মানুষের ওজন এবং উচ্চতার ওপর ভিত্তি করে গণনা করা হয় যে কোন ব্যক্তির ওজন কম, বেশী বা মেদবহুল কিনা। বডি মাস ইনডেক্স একটি ব্যক্তির শরীরের ওজন তার উচ্চতার অনুপাতে গণনা করা হয়; তবে এতে ব্যক্তিটির বয়স আর তাদের জাতি-বর্ণ অনুযায়ী বিভিন্নতা আছে।

শরীরের বিভিন্ন আকৃতির কারণে, পাশ্চাত্যের সমকক্ষ  অধিবাসীদের তুলনায় প্রাচ্যের অধিবাসীদের ওভারওয়েট সীমা কম হয়।

উপরন্তু, বিএমআই বয়স্কদের তুলনায় শিশুদের মধ্যে ভিন্নভাবে মাপা হয়। গণনা একই হয়ে থাকে কিন্তু স্বাভাবিক ওজন পরিমাপ নির্ধারণের তুলনায় সাধারণ জনগোষ্ঠীর পরিবর্তে একই লিঙ্গের এবং বয়সের শিশুদের সাথে তুলনা করা হয়।

এই সমস্ত বিষয়গুলি মনে রেখে, আপনার সন্তানের ওজন স্বাস্থ্যকর পরিসীমার মধ্যে আছে কিনা তা নির্ধারণের চেষ্টা করার সময় বিএমআই একটি জটিল পরিমাপ হতে পারে। যদি আপনি উদ্বিগ্ন হন যে আপনার বাচ্চার ওজন খুব বেশী বা খুব কম, তাহলে আপনার পারিবারিক ডাক্তারের সাথে পরামর্শ করা উচিত যিনি পরামর্শ দিতে সক্ষম হবেন।

বিএমআই চার্ট পড়ুন

src=https://sg.theasianparent.com/wp content/uploads/2017/12/Why Is My Child Losing Weight feat.jpg কেন আমার বাচ্চার ওজন কমছে?

এখন, প্রতিটি বিএমআই চার্টের পরিমাপ শতাংশে বিভক্ত করা থাকে। তাই যদি আপনার সন্তানের ওজন শতকরা ৫ এর কম হয় তার মানে আপনার বাচ্চা কম ওজনের।

যদি আপনার বাচ্চা ওজন হারাচ্ছে, এভাবেই ডাক্তারেরা  স্থির করেন যে তার আরও উন্নত খাবার শারীরিক ক্রিয়াকলাপ করা দরকার।

তাঁরা ওর জন্য কিছু খাবারের সুপারিশ এবং বিশেষ ব্যায়াম করার জন্য বলতে পারেন যাতে বয়স এবং উচ্চতা অনুযায়ী তার ওজন বাড়ে

কিন্তু যদি আপনার সন্তানে ওজন কমার কারণ অসুস্থতার কারণে হয় তাহলে সেটা চিন্তার বিষয়। তাই, এর পর যা করতে হবে তা হল, বাচ্চার রুটিন এবং খাদ্যে পরিবর্তন করার সঙ্গে সঙ্গে সম্ভাব্য অসুখের জন্য পরীক্ষা করানো।

বাচ্চাদের ওজন কমার সম্ভাব্য কারণ কি?

অনেক শিশুর ওজন দ্রুত কমে যায় যদি তাদের দ্রুত ওজন কমার সাথে সাথে নিম্নলিখিত উপসর্গগুলি দেখা যায়। অধিকাংশ ক্ষেত্রে, ওজন হ্রাস শুধু একটি বড় কোনও অন্তর্নিহিত অসুস্থতার প্রাথমিক নিদর্শন হতে পারে।

অতএব, এগুলিকে এই একটি শিশুর শরীরের মানুলি 'পরিবর্তন' বলে উপেক্ষা করা উচিত নয়।

  • জ্বর
  • ডিহাইড্রেশন
  • ঘন ঘন প্রস্রাব
  • ডায়রিয়া বা বমি
  • সর্দি এবং কাশি
  • গলা ব্যথা
  • বুকে এবং কানে ব্যথা
  • বেশী বা কম ঘুম
  • অবসাদ
  • খাওয়ার সমস্যা যেমন বেশী বা কম খাওয়া
  • শৈশব ক্যান্সার
  • গ্যাস্ট্রোইনটেস্টাইনাল সমস্যা

আপনি যদি এই পরিবর্তনগুলি বা অসুস্থতার কিছু লক্ষ্য করেন তবে আপনার বাচ্চাকে দ্রুত ডাক্তারের কাছে নিয়ে যান। যাইহোক, যদি আপনার সন্তানের এইসব সমস্যা না থাকে আর তবুও ওজন কমে, তবে এটি উপযুক্ত পুষ্টির অভাবের কারণে হতে পারে।

কিভাবে আমার সন্তানের ওজন বাড়বে?

আপনার সন্তানের ওজন বাড়াতে এবং তার শরীরে কিছু অতিরিক্ত কিলো যোগ করতে সাহায্য করার জন্য, আপনি তার খাদ্যে পরিবর্তন করতে চাইতে পারেন।

তার খাবারে সুস্থ ফ্যাট, ফাইবার এবং অপরিহার্য পুষ্টি এবং খনিজ পদার্থ বাড়ালে আপনার সন্তান তার আদর্শ ওজনে পৌঁছতে পারে।

  • আপনার বাচ্চাকে অন্তত বিভিন্ন ধরণের ফলের এবং সবজির পাঁচটি পদ দিন
  • খাবারে যেন চাল, আলু, রুটি এবং এমনকি পাস্তা সহ সমৃদ্ধ কার্বোহাইড্রেট থাকে
  • দুধ এবং দুগ্ধজাত খাদ্য আপনার বাচ্চার খাবারে অন্তর্ভুক্ত করুন
  • প্রোটিন সমৃদ্ধ খাবার যেমন, ডিম, মাছ, মটরশুঁটি এবং ডাল যোগ করুন
  • এছাড়াও তাকে প্রচুর তরল এবং অন্তত ১০ গ্লাস জল দেওয়া নিশ্চিত করুন

এই খাদ্যতালিকার ব্যবস্থা ছাড়াও, নিশ্চিত করুন যে আপনার বাচ্চাকে যথেষ্ট বিশ্রাম দেওয়া হচ্ছে এবং সে একটি চাপ-মুক্ত জীবন যাপন করছে। মানসিক স্বাস্থ্য তার শারীরিক স্বাস্থ্যের জন্যও গুরুত্বপূর্ণ।