কেন অধিকাংশ শিশু তাদের বাবার চেয়ে মাকে বেশী পছন্দ করে?

কেন অধিকাংশ শিশু তাদের বাবার চেয়ে মাকে বেশী পছন্দ করে?

নবজাত শিশুটির তার মায়ের প্রতি আকর্ষণ দেখে অনেক বাবা তাঁদের স্ত্রীর প্রতি ঈর্ষা বোধ করেন।  আবার কখনও নোতুন বাচ্চাটি তাঁর সঙ্গে বেশীক্ষণ থাকে না বলে তাঁরা নিজেদের পরিত্যাক্ত বা হতাশাগ্রস্ত বোধ করেন।   এক্ষেত্রে বাবার কি করা উচিৎ?

নবজাত শিশুদের তাদের বাবার চাইতে মাকে বেশী পছন্দ করা সম্পূর্ণ স্বাভাবিক

প্রথমেই, এটা জানা দরকার যে নবজাত শিশুদের পক্ষে, তাদের বাবার চেয়ে মায়ের ওপর নির্ভর করা খুবই স্বাভাবিক, কারণ মায়ের গর্ভে ৯ মাস থাকা ছাড়াও যত্ন ও পুষ্টির জন্য তাদের মায়ের মুখাপেক্ষী হতেই হয়।

শিশুরা এক মা-বাবা থেকে অন্য মা-বাবার কাছেও স্বচ্ছন্দে থাকতে পারে কারণ এই বয়সে তাদের বুদ্ধি সম্পূর্ণ বিকশিত হয় না এবং তারা এখনও এই বিশ্ব ও তার চারপাশের মানুশ সম্বন্ধে বিশেষ কিছুই জানে না।

সেজন্য বাবাদেরও তাদের বাচ্চার সাথে সময় কাটানো দরকার, যাতে শিশুরা তাঁদের চেহারার সঙ্গে, গন্ধের সঙ্গে পরিচিত হতে পারে এবং তাহলেই তারা তাদের বাবার উপস্থিতিতে স্বচ্ছন্দ হবে।

বাবারা তাঁদের নবজাত শিশুর ঘনিষ্ঠ হতে কি করবেন?

বাচ্চাটি তাঁর চেয়ে মায়ের কাছে থাকতে বেশী পছন্দ করে বলে কিছু বাবাদের খারাপ লাগতে পারে বা ঈর্ষান্বিত বোধ করতে পারেন কিন্তু এটা মনে রাখা খুবই জরুরী যে এ ব্যাপারটা মা আর বাবার মধ্যে কোনও প্রতিযোগিতা নয়।  শিশুটি আপনাদের দুজনকেই সমান ভালবাসে কিন্তু বাবার ক্ষেত্রে বাচ্চাটিকে তাঁর নেওটা করতে হলে কিঞ্চিৎ বাড়তি অধ্যবসায় করতে হবে।

যে বাবারা তাঁর বাচ্চাটির সঙ্গে ঘনিষ্টতা চান, তাঁদের চেষ্টা করতে হবে শিশুটির সঙ্গে অনেকতা সময় সুন্দরভাবে কাটাতে, আর নিয়ম করে এটা প্রতিদিনই করতে হবে।  তাঁরা যদি শিশুটিকে ঘুম পাড়াবার দায়িত্ব নিতে পারেন তাহলে খুবই ভাল, এতে শিশুটিও তাঁদের সঙ্গে সড়গড় হবে এবং তাঁদের স্ত্রীরাও দিনভর শিশুটির পরিচর্যার পর বিশ্রামের জন্য বাড়তি সময় পাবেন।

শিশুরা যখন দেখে অভ্যস্ত হবে যে বাবা তাদের যত্ন করছে, তখন সেটা একটা আবেগপূর্ণ সম্পর্ক গড়ে তুলত সাহায্য করবে এবং শিশুটি বুঝবে যে তার বাবাও এমন একটি লোক যার ওপর নির্ভর করা যায়, যে তাকে নিরাপদে রাখতে সক্ষম।

বাচ্চাদের জন্য অন্তরঙ্গতা গুরুত্বপূর্ণ, বিশেশত এরকম কম বয়সে, আর শিশু অবস্থার এই বন্ধন আজীবন তাদের সঙ্গে টিকে থাকবে।  সেজন্য সন্তানের সঙ্গে স্নেহ-ভালবাসার সম্পর্ক গড়ে তুলতে হলে, এই প্রচেষ্টা যত তাড়াতাড়ি শুরু করা যায় ততই ভাল।

Any views or opinions expressed in this article are personal and belong solely to the author; and do not represent those of theAsianparent or its clients.

Written by

theIndusparent